1. admin@amardeshpbd.com : amardesh :
  2. sumarubelp@gmail.com : suma :
- আমার দেশ প্রতিদিন
December 8, 2022, 12:14 am
ব্রেকিং নিউজ:
বিএমএসএস বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক সোসাইটির সিলেট বিভাগীয় সম্মেলন ও মিলন মেলা অনুষ্ঠিত রাবেয়া ক্লিনিকে রোগীকে ভুল অপারেশন করায় ডুমুরিয়া থানায় অভিযোগ, ভুক্তভোগীকে মিথ্যা মামলা দিয়ে ফাঁসিয়ে দেওয়ার হুমকি দিচ্ছে ডাক্তার হাসান লালমনিরহাটে বন্ধ রাস্তা চালুর দাবীতে গ্রামবাসীদের মানববন্ধন আজ নাটোরে পালিত হলো বিশ্ব মৃত্তিকা দিবস ডুমুরিয়ায় শিশু কন্যাকে যৌন হয়রানির অভিযোগে মন্টু মোল্যাকে আটক করেছে থানা পুলিশ ডুমুরিয়ার চুকনগরে এক সপ্তাহের ব্যাবধানে ৫টি দুঃসাহসিক চুরি সংঘটিত হয়েছে ফলে চুরি নিয়ে শঙ্কিত রয়েছে সাধারণ মানুষ গাবতলী নেপালতলী ইউপি চেয়ারম্যান বাবুর বিরুদ্ধে অনিয়ম-দূর্নীতির অভিযোগ বগুড়ায় জেলা যুবলীগের উদ্যোগে দোয়া ও মিলাদ মাহফিল চুনারুঘাটে ৪ কোটি ৩২ লক্ষ টাকা ব্যয়ে ২ টি ব্রিজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন বিমান প্রতিমন্ত্রী-এড.মাহবুব আলী সাংবাদিক ফারুক হোসেনর মৃত্যুতে বাংলাদেশ প্রেসক্লাব লালমনিরহাটের গভীর শোক প্রকাশ

Reporter Name
  • Update Time : মঙ্গলবার, নভেম্বর ২২, ২০২২,
  • 61 Time View

আমার দেশ প্রতিদিন
নিউজ ডেস্ক

পাবনার ঈশ্বরদী উপজেলার লক্ষীকুন্ডা ইউনিয়নের বাটিকাপাড়া মৌজার একটি জমি দখলের অভিযোগ উঠেছে ভূমিদস্যু লিটন বিশ্বাস সহ তার ভাইদের বিরুদ্ধে ৷ ভূমিদস্যুদের বিরুদ্ধে অভিযোগ করে ভুক্তভোগী রঞ্জু আহমেদ বলেন৷ গত ৩০ জুন ২০২২ তারিখে ৩ একর ৬০ শতাংশ জমি ক্রয় করি মৃত তোফিজ উদ্দীনের ওয়ারিসবর্গের কাছে থেকে। জমিটা ক্রয় করি ১ কোটি ১৮ লক্ষ টাকা দিয়ে৷ কেনার পরে জমিটা পরে ছিলো তারপর আমি জমিটা খাজনা দেই। খাজনা দেওয়া হয় আমার মায়ের ফুফাতো ভাই জানাল প্রামানিক ও তাইজাল প্রামানিকের কাছে৷ তারা সেখানে চাষাবাদ শুরু করে। এক পর্যায়ে সেখানে মুলা আবাদ করছিলো তারা৷ মুলা যখন ওঠার সময় হয়ে গেলো তখন ভূমিদস্যুরা এসে দেশীয় অস্ত্রসহ ভয়ভীতি দেখিয়ে জমিটা দখল করে নেয়৷।তিনি আরো বলেন যারা জমিটা দখল করেছে তারা অনেক শক্তিশালী ও প্রচুর ক্ষমতাবান৷ এরা হলেন মৃত জুনাব বিশ্বাস এর ছেলে টিপু বিশ্বাস, দীপু বিশ্বাস ও লিটন বিশ্বাস।জমি বিক্রেতা তফিজ উদ্দীনের বড় ছেলে জিন্না প্রামানিক জানায়, এ জমিটা আমার বাবার। বাবার মৃত্যুর পর আমরা ৫ ভাইবোন ও মা জমিটা বিক্রি করে দেই রঞ্জুর কাছে। রঞ্জুকে আমরা দখল বুঝিয়ে দেই। সে জমি খাজনা দেয়৷ চাষাবাদ শুরু করে৷ এক পর্যায়ে শুনি জুনাব বিশ্বাস এর তিন ছেলে জমিটা তাদের কাছে থেকে দখল করে নিয়েছে।এদিকে জমি লিজ নেওয়া ব্যাক্তি জালাল প্রামানিক ও তাইজাল প্রামানিক জানায়, আমি জমিটি লিজ নিয়ে মুলা চাষ করতে থাকি। আমি লিজ নেই আতিয়ার রহমানের ছেলে রঞ্জু আহমেদের কাছে থেকে।
তার থেকে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র দেখেই আমি জমি লিজ নিয়েছি। কিন্ত যখন জমি থেকে মুলা উত্তোলনের সময় চলে আসলো সে সময় একদিন আমি জমি দেখাশোনা করতে মাঠে গিয়েছি৷ এসময় দেশীয় অস্ত্রসহ মৃত জুনাব বিশ্বাস এর তিন ছেলে টিপু বিশ্বাস, দীপু বিশ্বাস, ও লিটন বিশ্বাস আমাদের জমি থেকে চলে যেতে বলে। এক পর্যায়ে আমি বললান আমি জমি খাজনা নিয়েছি আমাকে আমার ফসল তুলে নিয়ে যেতে দেন। এসব কথা না শুনেই তারা আমাদের ভয়ভীতি দেখিয়ে জমি থেকে তুলে দেয়। আমরা গ্রামের মাতব্বরদের সাথে আলোচনা করেছি তাতে তাদের কথা ছিলো তারা কোন কাগজের বলে জমি দখল করে আছে সেটা দেখালে আমি নিজেই জমি থেকে চলে যাবো। তারা যদি আসলেই জমি পেয়ে থাকে তাহলে আমি জমি থেকে নেমে যাবো৷ আমরা অনেকবার জমির কাগজপত্র দেখাতে বললেও তারা প্রয়োজনীয় কোনো কাগজপত্র দেখাতে পারেনি। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক পার্শ্ববর্তী জমির মালিক বলেন দীপু, টিপু, লিটন, এরা শক্তিশালী বংশ এদের হাতে অনেক ক্ষমতা আছে। আমরা জানি যে এই জমিটি রঞ্জু কিনেছে তবে সে দখলে গেলে তাকে তুলে দিয়ে দীপু, টিপু,লিটন এরা দখল করে চাষাবাদ করছে৷স্থানীয় আরো কয়েকজন জানায়, কামালপুরের জুনাব বিশ্বাস এর ছেলেপেলে নেশাগ্রস্ত এটা সকলেই জানে। তারা বিভিন্ন অপকর্ম সন্ত্রাস, জমি দখল সহ নানা অপরাধের সাথে জড়িত। কোনো কিছু হলেই তারা দলবল হাসুয়া নিয়ে আক্রমন শুরু করে। তাদের কথা হলো, চেয়ারম্যান, মেম্বার, থানা পুলিশ, এসব বিষয় তারা পাত্তা দেয়না। থানা নাকী তাদের পকেটে, পুলিশ প্রশাসন হাতের মধ্যে। এসকল বিষয় জানতে চাইলে অভিযুক্ত দখলকারীর মধ্যে লিটন বিশ্বাস সকল অভিযোগ ভিত্তিহীন বলে জানায়,আমরা কোনো জমি দখল করে খাইনি। যার নামে জমি তার জমি সেটাই স্বাভাবিক। কাগজ কথা বলবে। জমি যেহেতু আমাদের দখলে আমরা কোর্টে মামলা করেছি।তবে জমির মালিকানা সংক্রান্ত কোনো ধরনের কাগজপত্র দেখাতে পারেনি অভিযুক্তরা।

মোঃ সবুজ মোল্লা
পাবনা সংবাদদাতা
মোবাঃ ০১৩০৩-০৫৩৩৮১

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category
Copyright © All Right Reserved 2020 আমার দেশ প্রতিদিন
Theme Designed BY Kh Raad ( Frilix Group )